1. aftabguk@gmail.com : aftab :
  2. ashik@ajkerjanagan.net : Ashikur Rahman : Ashikur Rahman
  3. chairman@rbsoftbd.com : belal :
  4. ceo@solarzonebd.com : Belal Hossain : Belal Hossain
×
     

এখন সময় বিকাল ৫:০১ আজ রবিবার, ২০শে অগ্রহায়ণ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ৫ই ডিসেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ, ২৮শে রবিউস সানি, ১৪৪৩ হিজরি




ধাপেরহাটে প্রভাবশালীর দাপট শিক্ষকের জমিতে গড়ে তুলেছেন ব্যবসা প্রতিষ্ঠান

  • সংবাদ সময় : সোমবার, ১৪ ডিসেম্বর, ২০২০
  • ১৪১ বার দেখা হয়েছে
সাদুল্লাপুর প্রতিনিধি  :
গাইবান্ধার সাদুল্লাপুর উপজেলার ধাপেরহাট বন্দরে প্রায় ২ শতাংশ এক শিক্ষকের জমি র্দীঘদিন থেকে অবৈধ্য ভাবে জোরপূর্বক দখল করে আছে প্রভাবশালী একটি মহল। প্রায় ২৫ বছর আগে ক্রয়করা ৭৮ দাগের ৩ শতক জমির মধ্যে ১ শতক দখলে থাকলেও বাকি প্রায় ২ শতক জমি দখলে নেয় স্থানীয় ব্যবসায়ী সিদ্দিকুর রহমান, খাজা, জাকির ও রোকন তিন ভাই। অসহায় শিক্ষক নূর মোহাম্মদ মিলন এ নিয়ে গত ১১ নভেম্বর ২০২০ গাইবান্ধা বিজ্ঞ ম্যাজিষ্ট্রেট আদালতে একটি মামলা দায়ের করেন। যাহার পিটিশন নং ৩৩৯/২০, বিজ্ঞ আদালত মামলাটি আমলে নিয়ে স্থানীয় ভূমী অফিসারকে তদন্ত প্রতিবেদন দাখিলের নিদের্শ প্রদান করেন। ১৩ ডিসেম্বর রবিবার দুপুরে ধাপেরহাট ভূমী অফিসের উপ-সহকারী ভূমী কর্মকর্তা ছামছুল ইসলাম সাবিন সরেজমিনে ঘটনা স্থলে তদন্তে আসেন। এ সময় তিনি জমির কাগজপত্র,মাপযোগ এবং দখল শর্তের প্রতিবেদন তৈরির জন্য উপজেলা ভূমী অফিসের সার্ভেয়ার আরিফুর রহমানের সহায়তায় নালীশি জমিটি মাপযোগ করে সীমানা পিলার দিয়ে সীমানা নির্ধারন করেন। তাতে দেখা যায় ৭৮ দাগের প্রায় ১৩ ফুট (২শতক) জায়গা দীর্ঘদিন থেকে অবৈধ্য ভাবে ব্যবসা প্রতিষ্ঠান গড়ে তুলে দখলে রেখেছেন প্রভাবশালী সিদ্দিকুর রহমান গং। জমির সীমানা নির্ধারনের সময় উপস্থিত ছিলেন জালাল উদ্দিন মন্ডল হিরু, সভাপতি বাংলাদেশ আ’লীগ,৬নং ধাপেরহাট ইউনিয়ন শাখা,স্থানীয় যুবলীগের সাধারন সম্পাদক আফতাবুজ্জামান,রোমান,গনেষ,রিমেল,পলাশ,পাপুল, ছাত্রলীগের সভাপতি হাসানুর,ছাত্রলীগ নেতা,আব্দুল্যাহ আল মামুন, স্থানীয় শ্রমিক লীগ সভাপতি উজ্জল সাহা, স্থানীয় কৃষকলীগ সভাপতি জিয়াউর রহমান জিয়া, সম্পাদক হাফিজার রহমান, বণিক সমিতির সাধারন সম্পাদক আব্দুল খালেক মন্ডল, বিশিষ্ট ব্যবসায়ী হারুন প্রামানিক, মান্নান মন্ডল,লাজু মন্ডল, নজরুল ইসলাম,শরিফুল প্রামানিক, আবু তাহের জিরো, মিডিয়া কর্মী আমিনুল ইসলাম, লাবলু প্রামানিক, নয়ন সাহা, সাজু মাস্টার, সহ স্থানীয় ধাপেরহাট পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রের সদস্যবৃন্দ। উপস্থিত এলাকারগন্যমান্য ব্যক্তিবর্গ সকলে বিষয়টি নিষ্পত্তির জন্য বিবাদী সিদ্দিকুর রহমানগংদের নিয়ে আপোষ মিমাংসা করার জন্য ৭ দিনের সময় নির্ধারন করে দেন। উল্লেখ্য যে, নালিশী ঐ জমি নিয়ে প্রায়ই এলাকায় উত্তেজনার পরিস্থিতি সৃষ্টি হয়। বন্দরে বসবাস রত শান্তি প্রিয় বাসিন্দারা এ বিষয়ে দ্রæত সুষ্ট সমাধান চান। ইতিমধ্যে ঐ জমিতে ১৪৪ ধারাও জারি হয়েছে। যা বর্তমানে বলবৎ আছে।




সংবাদটি শেয়ার করুন

এই ধরনের আরো সংবাদ