1. aftabguk@gmail.com : aftab :
  2. ashik@ajkerjanagan.net : Ashikur Rahman : Ashikur Rahman
  3. chairman@rbsoftbd.com : belal :
  4. ceo@solarzonebd.com : Belal Hossain : Belal Hossain
×
     

এখন সময় বিকাল ৫:৪০ আজ রবিবার, ২০শে অগ্রহায়ণ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ৫ই ডিসেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ, ২৮শে রবিউস সানি, ১৪৪৩ হিজরি




ধর্ম কিভাবে করোনা সংকট মোকাবেলাকে সমর্থন করতে পারে?

  • সংবাদ সময় : শনিবার, ২৪ অক্টোবর, ২০২০
  • ১৪৪ বার দেখা হয়েছে

ঢাকায় টক শোঃ ডিডাব্লিউ, আর্টিকেল নাইনটিন এবং চ্যানেল আই এর সাথে জার্মান ফেডারেল পররাষ্ট্র দপ্তরের একটি যৌথ প্রকল্প

কোভিড-১৯ অবিশ্বাসী, উদারপন্থী এবং বিদ্বেষীদের শাস্তি হিসেবে সর্বশেষ আশ্রয়স্থল হিসেবে সামাজিক দূরত্বের প্রয়োজনীয়তা সত্ত্বেও জনবহুল গণ প্রার্থনার আহ্বান জানিয়েছে – ইসলামী চরমপন্থীরা করোনা সংকটে তাদের মতামত উত্থাপন করেছে এবং ব্যাপকভাবে প্রতিধ্বনিত হচ্ছেঃ কিন্তু এই কন্ঠস্বর কি সত্যিই করোনা সংকটে ধর্মের ভূমিকাকে সংজ্ঞায়িত করেছে? নাকি ধর্ম মহামারী মোকাবেলায় ইতিবাচক আবেগ সরবরাহ করতে সক্ষম নয় ? ২৩ অক্টোবর শুক্রবার ঢাকায় অনুষ্ঠিত একটি টেলিভিশন টক শো’তে ইসলাম, হিন্দু, বৌদ্ধ ও খ্রিস্টান ধর্মের প্রতিনিধি এবং বাংলাদেশের একজন ইসলামী নারী অধিকার কর্মীর সাথে এই প্রশ্নটি নিয়ে আলোচনা করবেন ডিডাব্লিউ এর বাংলা সম্পাদকীয় দলের প্রধান খালেদ মুহিউদ্দিন।

ডিডাব্লিউ হচ্ছে জার্মানির আন্তর্জাতিক সম্প্রচারকারী সংস্থা, বাংলা সহ ৩০ টি ভাষায় এর মাল্টিমিডিয়া বিষয়বস্তু প্রতি মাসে বিশ্বব্যাপী এক বিলিয়নের ও বেশী মানুষের কাছে পৌঁছায়।

আর্টিকেল নাইনটিন যুক্তরাজ্যভিত্তিক একটি আন্তর্জাতিক সংস্থা যা বাক স্বাধীনতা, মতপ্রকাশের স্বাধীনতা ও তথ্য অধিকার বিষয়ে বিশ্বের বিভিন্ন দেশে কাজ করে।

প্যানেলিস্টদের মধ্যে রয়েছেন ন্যাশনাল ইনস্টিটিউট অব ল্যাবরেটরি মেডিসিন এন্ড রেফারেল সেন্টারের ডিরেক্টর ও মাইক্রোবায়োলজির প্রফেসর অধ্যাপক এ কে এম শামসুজ্জামান, ইসলামিক ফাউন্ডেশনের মুহাদ্দিস মুফতী ওয়ালীউর রহমান খান, এশিয়া প্যাসিফিক বিশ্ববিদ্যালয়ের আইন ও মানবাধিকার বিভাগের সহকারী অধ্যাপক আজিজুন নাহার এবং বাংলাদেশ হিন্দু, বৌদ্ধ ও খ্রিস্টান ঐক্য পরিষদের সভাপতি মন্ডলীর সদস্য কাজল দেবনাথ।

পানেলিস্টরা একমত যে কোভিড-১৯ সংকটের সময়ে ক্ষতিগ্রস্তদের জন্য সামাজিক দূরত্ব, পরিচ্ছন্নতা এবং সক্রিয় সাহায্য করা হচ্ছে সরাসরি ধর্মীয় কর্তব্য এবং এই সংকট সবাইকে প্রভাবিত করেছে যা তারা বিশ্বাস করুক বা না করুক।

ডিডাব্লিউ এশিয়ার প্রকল্প ব্যাবস্থাপক ফ্লোরিয়ান অয়েগাইন্ড বলেছেন, “আমরা খুবই আনন্দিত যে আমরা এই গুরুত্বপূর্ণ আলোচনার জন্য ধর্মীয় নেতাদের প্রোগ্রামে সম্পৃক্ত করতে পেরেছি’। দক্ষিন এশিয়ায় ধর্ম গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে”।বাংলাদেশ ও দক্ষিণ এশিয়ার আঞ্চলিক পরিচালক ফারুখ ফয়সল বলেন, ‘যখন বাংলদেশ সরকার কোভিড-১৯ এর দ্বিতীয় তরঙ্গ মোকাবেলার প্রস্তুতি নিচ্ছে, তখন এই ধরনের কর্মসূচী প্রধানমন্ত্রীর উদ্যোগকে সমর্থন করবে। বাংলাদেশ ছাড়াও ডিডাব্লিউ’র সামাজিক মাধ্যমে বাংলা ভাষায় অনুষ্ঠানটি আন্তর্জাতিকভাবে পাওয়া যাবে। চ্যানেল আই শনিবার রাতে স্যাটেলাইটের মাধ্যমে বিশ্বব্যাপী টেলিভিশন অনুষ্ঠান সম্প্রচার করবে। অনুষ্ঠানটি ফেসবুক এবং ইউটিউবে চ্যানেল আই প্ল্যাটফর্মে সরাসরি সম্প্রচার করা হবে।

 




সংবাদটি শেয়ার করুন

এই ধরনের আরো সংবাদ