1. aftabguk@gmail.com : aftab :
  2. ashik@ajkerjanagan.net : Ashikur Rahman : Ashikur Rahman
  3. chairman@rbsoftbd.com : belal :
  4. ceo@solarzonebd.com : Belal Hossain : Belal Hossain
×
     

এখন সময় সকাল ১০:২৫ আজ বৃহস্পতিবার, ১২ই কার্তিক, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ২৮শে অক্টোবর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ, ২০শে রবিউল আউয়াল, ১৪৪৩ হিজরি




মাছ ব্যবসায়ীদের সাঘাটা ইউএনও অফিস ঘেড়াও

  • সংবাদ সময় : শনিবার, ৩০ মে, ২০২০
  • ১৫৯ বার দেখা হয়েছে

 

সাঘাটা প্রতিনিধি: গাইবান্ধার সাঘাটা উপজেলার ফরমালিন মুক্তমাছ বোনারপাড়া বাজারের গতকাল  শুক্রবার ( ২৯ মে) মধ্যরাতে একটি সেড ঘরের  ১৮ টি  দোকান ভেঙ্গে ফেলে দুর্বৃত্তরা  । এঘটনায়  পুলিশ ঘটনা স্থল থেকে ৩ টি  হাতুড়ী, ২ টি শাবল উদ্ধার করে ।

এর প্রতিবাদে শনিবার দুপুরে  অনিদ্দিষ্ট কালের জন্য মাছ বিক্রি বন্ধ করে  সাঘাটা উপজেলা নির্বাহী অফিসারের কার্যালয় ঘেড়াও করে মানববন্ধন  কর্মাসুচি পালন করেছে জেলে সম্প্রদায়ের  শতাধিক নারী-পুরুষ।

মানববন্ধনে সাঘাটা উপজেলা মৎসজীবি সমিতির সাধারণ সম্পাদক রামলাল চন্দ্র দাস জানান, বোনারপাড়া হাট-ইজারাদার আমাদের কাছ থেকে টাকা চেয়েছেন । টাকা না দেয়ার কারনে গতরাতে পরিকল্পনা করে আমাদের পজেশনের দোকানগুলো ভেঙ্গে দেয় । আমরা এই সুষ্ট তদন্ত করে বিচার চাই ।

সাঘাটা উপজেলা মৎসজীবি সমিতির সাবেক সাধারণ সম্পাদক শচীন চন্দ্র জানান, আমরা মৎসজীবি এই করোনা ভাইরাসে অনেক কষ্ট করে জীবিকা নির্বাহ করছি । আমাদের রিজিকে হাত দিয়ে আমাদের দোকান ভেঙ্গে দেয়ার জন্য বিচার চাই এবং আমাদের প্রতি সদয় হয়ে সরকারের সু-দৃষ্টি কামনা করছি ।

সাঘাটা উপজেলা মৎসজীবি সমিতির সাবেক সাধারণ সম্পাদক মংলা চন্দ্র জানান, আমরা সরকারী টোল বা খাজনা  প্রতিদিন  ২৫ টাকা  টাকা দেই । সরকারী নিওম মতে খাজনা অনেক কম । আমাদের কোন খাজনার রশিদ না দিয়ে বেশী বেশী খাজনা নিয়ে্ও আমাদের দোকানে হামলা করা হয়েছে  এর বিচার চাই ।

সাঘাটা উপজেলা মৎসজীবি সমিতির  সভাপতি  সুবাস চন্দ্র দাস বালুয়া জানান, যতক্ষন পর্যন্ত এই  দোকান ভাঙ্চুরের  বিচার না হবে ততক্ষন পর্যন্ত এই উপজেলার প্রান কেন্দ্র বোনারপাড়ায়  মাছ বিক্রি বন্ধ থাকবে ।

নিজের বিরুদ্ধে অভিযোগ অস্বিকার করে হাট ইজারাদার মো: ফয়জার রহমান জানান, মাছ হাট ভাঙ্গার বিষয়ে আমি কিছুই জানি না ।

বোনারপাড়া পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রের ইনচার্জ  এনায়েত কবির জানান, মাছ ব্যবসায়ীদের খবরের ভিত্তিতে ঘটনা স্থল থেকে ৩ টি  হাতুড়ী, ২ টি শাবল উদ্ধার করা হয়েছে তবে এ ঘটনায় কেউ এখনো কোন অভিযোগ করেনি ।

বিষয়টি নিয়ে সাঘাটা উপজেলা নির্বাহী অফিসার মহিউদ্দিন জাহাঙ্গীরের সাথে কথা হলে তিনি জানান, মাছ ব্যবস্যায়ীদের এই সমস্যা সমাধানে বোনারপাড়া ইউপি চেয়ারম্যান ও উপজেলা  প্রকৌশলী মিলে আলোচনা করে সমস্যার সমাধান  করা হবে ।




সংবাদটি শেয়ার করুন

এই ধরনের আরো সংবাদ