1. aftabguk@gmail.com : aftab :
  2. ashik@ajkerjanagan.net : Ashikur Rahman : Ashikur Rahman
  3. chairman@rbsoftbd.com : belal :
  4. ceo@solarzonebd.com : Belal Hossain : Belal Hossain
×
     

এখন সময় রাত ১২:৪৮ আজ বৃহস্পতিবার, ৫ই কার্তিক, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ২১শে অক্টোবর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ, ১৩ই রবিউল আউয়াল, ১৪৪৩ হিজরি




রোহিঙ্গা ক্যাম্পে এনজিও কর্মকাণ্ড নজরদারিতে

  • সংবাদ সময় : রবিবার, ১ সেপ্টেম্বর, ২০১৯
  • ১২৮ বার দেখা হয়েছে

পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. একে আবদুল মোমেন বলেছেন, কক্সবাজারের রোহিঙ্গা ক্যাম্পগুলোতে সব এনজিওর কার্যক্রম নজরদারিতে রাখা হয়েছে। অপকর্মের তথ্য-প্রমাণ পাওয়া গেলে ব্যবস্থা নেয়া হবে। তিনি আরও বলেন, রোহিঙ্গা ক্যাম্পে অপকর্মে লিপ্ত থাকায় ৪১টি বেসরকারি সংগঠনকে (এনজিও) ক্যাম্পের সব ধরনের কার্যক্রম থেকে প্রত্যাহার করা হয়েছে। শনিবার সিলেটে এক অনুষ্ঠান শেষে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে তিনি এ কথা বলেন।

সিলেট সিটি কর্পোরেশনের ২৭নং ওয়ার্ডের গোটাটিকর এলাকায় ডাম্পিং গ্রাউন্ডের পাশে স্থাপিত মেডিকেল বর্জ্য ব্যবস্থাপনা কার্যক্রমের ফলক উন্মোচন করেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. আবদুল মোমেন। এ সময় তিনি মেডিকেল বর্জ্য ব্যবস্থাপনা কার্যক্রম ঘুরে দেখেন। তিনি বলেন, মেডিকেল বর্জ্য ব্যবস্থাপনা তার বড় ভাই সাবেক অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত ও সিটি মেয়র আরিফুল হক চৌধুরীর স্বপ্ন ছিল। এ সময় সিটি মেয়র আরিফুল হক চৌধুরীসহ সিটি কর্পোরেশনের কর্মকর্তা ও সিলেট জেলা এবং মহানগর আওয়ামী লীগের নেতারা উপস্থিত ছিলেন।

অপকর্মে লিপ্ত ৪১টি এনজিও : রোহিঙ্গা ক্যাম্পগুলোতে অপকর্মে লিপ্ত এনজিওদের তালিকা গোয়েন্দা সংস্থার রিপোর্টের ভিত্তিতে তৈরি করা হয়। ২০১৮ সালের আগস্টে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় এ তালিকা তৈরি করে। এনজিওগুলো হল- মুক্তি, ঢাকা আহ্ছানিয়া মিশন, ফ্রেন্ডশিপ, এনজিও ফোরাম ফর পাবলিক হেলথ, আল মারকাজুল ইসলাম, স্মল কাইন্ডনেস বাংলাদেশ, গ্রামীণ কল্যাণ, অগ্রযাত্রা, নেটওয়ার্ক ফর ইউনিভার্সাল সার্ভিসেস অ্যান্ড রুরাল অ্যাডভান্সমেন্ট, আল্লামা আবুল খায়ের ফাউন্ডেশন, ঘরনী, ইউনাইটেড সোশ্যাল অ্যাডভান্সমেন্ট, পালস, ব্যুরো-বাংলাদেশ, এসএআর, আসিয়াব, এসিএলএবি, এসডবি-উএবি, ন্যাকম, এফডিএসআর, জমজম বাংলাদেশ, আমান, ওব্যাট হেলপার্স, হেল্প কক্সবাজার, শাহবাগ জামেয়া মাদানিয়া কাসিমুল উলুম অরফানেজ, ডেভেলপমেন্ট ইন্সটিটিউট ফর সোশ্যাল অ্যান্ড হিউম্যান অ্যাফেয়ার্স, লিডার্স, লোকাল এডুকেশন অ্যান্ড ইকোনমিক ডেভেলপমেন্ট অর্গানাইজেশন, অ্যাসোসিয়েশন অব জোনাল অ্যাপ্রোচ ডেভেলপমেন্ট, হিউম্যান এইড অ্যান্ড রিলিফ অর্গানাইজেশন, বাংলাদেশ খেলাফত যুব মজলিশ, হোপ ফাউন্ডেশন, ক্যাপ আনামুর, টেকনিক্যাল অ্যাসিস্ট্যান্স ইনকর্পোরেশন, গরিব, এতিম ট্রাস্ট ফাউন্ডেশন, মুসলিম এইডস ইউকে, ইসলামিক রিলিফ, ইসলামিক এইড, বাংলাদেশ চাষী কল্যাণ সমিতি এবং নমিজন আফতাবি ফাউন্ডেশন।




সংবাদটি শেয়ার করুন

এই ধরনের আরো সংবাদ