1. aftabguk@gmail.com : aftab :
  2. ashik@ajkerjanagan.net : Ashikur Rahman : Ashikur Rahman
  3. chairman@rbsoftbd.com : belal :
  4. ceo@solarzonebd.com : Belal Hossain : Belal Hossain
×
     

এখন সময় বিকাল ৫:২৮ আজ শুক্রবার, ৩১শে বৈশাখ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ১৪ই মে, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ, ৩০শে রমজান, ১৪৪২ হিজরি




ফুলছড়ির চরে বাল্যবিয়ে, মাদক, সন্ত্রাস ও জ্ঙ্গী বিরোধী সমাবেশে-এসপি :স্থানীয় জনগণকে সাথে নিয়েই অপরাধমূলক কর্মকান্ড নির্র্মূল করা হবে

  • সংবাদ সময় : সোমবার, ২৮ মে, ২০১৮
  • ১৪২ বার দেখা হয়েছে

ডেস্ক রিপোর্ট: স্থানীয় জনগণকে সাথে নিয়েই চরাঞ্চল থেকে সকল ধরণের অপরাধমূলক কর্মকান্ড নির্মূল করা হবে। পুলিশ সাধারণ ও ভাল মানুষের সাথে আছে এবং থাকবে। যারা সমাজে অন্যায় ও অপরাধমূলক কর্মকান্ডের সাথে সম্পৃক্ত তাদের জন্য পুলিশ যথাযথভাবে আইনী ব্যবস্থাগ্রহণ করবে বলে জানান গাইবান্ধা পুলিশ সুপার আবদুল মান্নান মিয়া। গতকাল বিকালে গাইবান্ধার ফুলছড়ি উপজেলার পূর্ব ফুলছড়ি নিন্ম মাধ্যমিক বিদ্যালয় মাঠে জেলা পুলিশের আয়োজনে এবং কমিউনিটি পুলিশিং ফোরাম ও গণ উন্নয়ন কেন্দ্র (জিইউকে) এর সহযোগিতায় বাল্যবিয়ে, মাদক, সন্ত্রাস ও জ্ঙ্গী বিরোধী সমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তব্যে পুলিশ সুপার আরো বলেন, সাধারণ মানুষের শান্তি-শ্ঙ্খৃলা রক্ষায় বর্তমান সরকার মাদক ও অপরাধমূলক কর্মকান্ডের সাথে জড়িতদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থাগ্রহণের নির্দেশ দিয়েছেন এবং পুলিশ সেই দায়িত্বই পালন করছে। বাল্যবিয়েও একটি মারাত্মক অপরাধ, নারীদের উন্নয়নে সরকার নানা পদক্ষেপ নিয়েছে। এক্ষেত্রে অভিভাবকদের দায়িত্বশীল ভূমিকা রাখতে হবে বলে তিনি অনুরোধ করেন। বন্যাকালীন যাতে চরাঞ্চলে মানুষজন তাদের জানমাল ও সহায়সম্পদ নিয়ে নির্ভিঘেœ থাকতে পারে এজন্য পুলিশ সর্বাত্মকভাবে দায়িত্ব করবে। এজন্য ফুলছড়ি থানায় অতিরিক্ত নৌ-টহল ছাড়াও স্পীডবোট টহল বৃদ্ধি করা হবে বলে জানান পুলিশ সুপার।
ফুলছড়ি ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আব্দুল গফুর মন্ডলের সভাপতিত্বে সমাবেশে বিশেষ অতিথি’র বক্তব্য রাখেন, গাইবান্ধা জেলা ও রংপুর বিভাগীয় কমিউনিটি পুলিশিং কমিটির আহবায়ক, গণ উন্নয়ন কেন্দ্র (জিইউকে) এর নির্বাহী প্রধান এম. আবদুস্্ সালাম, ফুলছড়ি থানার অফিসার ইনচার্জ বেলাল হোসেন, ওসি তদন্ত আঃ সোবাহান। সমাবেশে বিভিন্ন পেশাজীবীর সহা¯্রাধিক নারী পুরুষ উপস্থিত ছিলেন। এসময় মুক্ত আলোচনায় পুলিশ সুপার উপস্থিত জনগণের মতামত, পরামর্শ ও অভিযোগ গ্রহণ করেন এবং সেগুলো সমাধানে উদ্যোগগ্রহণ ও প্রক্রিয়াগুলো বলেন। এছাড়াও পুলিশি সেবা গ্রহণের ক্ষেত্রে যদি কেউ যদি হয়রানী ও  বিরম্বনায় পড়েন সেক্ষেত্রে সরাসরি পুলিশ সুপারের কাছে ফোন করার পরামর্শও দেন এই জনবান্ধব পুলিশ কর্মকর্তা।




সংবাদটি শেয়ার করুন

এই ধরনের আরো সংবাদ