এখন সময় রাত ২:৫৫ আজ বৃহস্পতিবার, ৬ই আষাঢ়, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ, ২০শে জুন, ২০১৯ ইং, ১৫ই শাওয়াল, ১৪৪০ হিজরী


Home / জাতীয় / গাইবান্ধা ও রংপুরে আস্পেক্টরেশিও ক্রিয়েটিভ কমিউনিকেশন কার্যক্রম শুরু

গাইবান্ধা ও রংপুরে আস্পেক্টরেশিও ক্রিয়েটিভ কমিউনিকেশন কার্যক্রম শুরু

ডেস্ক রিপোর্ট: ডিজিটাল কমার্স, ই-কমার্স ও কমিউনিটি কমার্স এই তিনের সমন্বয়ে জেলা, উপজেলা ও ইউনিয়ন পর্যায়ে অন্তত একটি করে শক্তিশালী, টেকসই ও কার্যকর “ডিজিটাল কমিউনিটি সেন্টার (সিডিসি)” বাস্তবায়নের কর্মপরিকল্পনা নিয়ে ই-কমার্স এসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ (ই-ক্যাব) এর সদস্য প্রতিষ্ঠান আস্পেক্টরেশিও ক্রিয়েটিভ কমিউনিকেশন, বাংলাদেশ, গাইবান্ধা ও বংপুর জেলায় তাদের কার্যক্রম শুরু করে। উল্লেখ্য যে, প্রতিষ্ঠানটি ২০১৩ থেকে প্রকল্প সংশ্লিষ্ট এপ্স, ওয়েব প্লাটফর্ম ও সফটওয়ার উন্নয়নের কাজ শুরু করে। প্রাথমিক পর্যায়ে রংপুর বিভাগকে কেন্দ্র করে প্রকল্প বাস্তবায়নের সম্ভাব্যতা যাচাইবাছাইয়ের কাজ শুরু ২০১৬তে। সম্ভাব্যতা যাচাইবাছাই শেষে রংপুর বিভাগের ৮টি জেলায় প্রকল্প বাস্তবায়নের কর্মপরিকল্পনা গ্রহণ করা হয়। সম্ভাব্যতা যাচাইবাছাইকালীন সমাজের বিভিন্ন পর্যায়ে সৃজনশীল ব্যাক্তি, সৃজনশীল যোগাযোগ মাধ্যম কর্মী, তথ্যপ্রযুক্তির সাথে যুক্ত ব্যাক্তিবর্গ এবং বিভিন্ন পেশাজীবী মানুষের সাথে মতবিনিময়ের মাধ্যমে উল্লেখিত উদ্ভাবনী প্রকল্প বাস্তবায়নের কর্মপরিকল্পনা তুলে ধরে বিভিন্ন পর্যায়ে আলোচনা করে।

আস্পেক্টরেশিও ক্রিয়েটিভ কমিউনিকেশন, বাংলাদেশ এর সত্ত্বাধিকারী মঈনুর রহমান সোহেল সম্প্রতি গাইবান্ধা২, সদর আসনের এমপি, বাংলাদেশ জাতীয় সংসদের মাননীয় হুইপ মাহাবুব আরা বেগম গিনি এমপি ‘র সাথে এক মতবিনিময়সভায় পাওয়ার পয়েন্ট প্রেজেন্টেশনের মাধ্যমে প্রকল্প সংশ্লিষ্ট বিস্তারিত তুলে ধরেন।

হুইপ মাহাবুব আরা বেগম গিনি এমপি ডিজিটাল বাংলাদেশ বিনির্মাণের লক্ষ্যে ডিজিটাল কমার্স, ই-কমার্স ও কমিউনিটি কমার্স এই তিনের সমন্বয়ে একটি শক্তিশালী, টেকসই ও কার্যকর আর্থ-সামাজিক অবকাঠামো গড়ে তোলার লক্ষ্যে প্রস্তাবিত এই ব্যাতিক্রম ধারনার প্রশংসা করে বলেন –  “বর্তমান বিশ্বে সৃজনশীল যোগাযোগ মাধ্যম ও তথ্যপ্রযুক্তির গুরুত্ব অপরিসীম। প্রস্তাবিত প্রকল্প ধারনাটি যথাযথ বাস্তবায়ন করা সম্ভব হলে ব্যাপক দক্ষ জনশক্তি ও কর্মসংস্থান গড়ে তোলা সম্ভব বলে তিনি আশাবাদ ব্যাক্ত করেন। গ্রামীণ পর্যায়েই-কমার্স সম্প্রসারণে প্রস্তাবিত প্রকল্প ধারনাটি ব্যাপক ভূমিকা রাখতে পারে বলেও তিনি মনে করেন।

এছাড়াও পরিকল্পনা মন্ত্রণালয় ও সমাজকল্যাণ মন্ত্রণালয়ের মন্ত্রী মহোদয়ের সচিব যথাক্রমে জনাব এনামুল হক ও জনাব আসিফ আহসান এবং আরডিআরএস বাংলাদেশ, রংপুরের দায়িত্বশীল কর্মকর্তাদের সাথে তাঁদের কার্যালয়ে প্রস্তাবিত প্রকল্প ধারনাটির পাওয়ার পয়েন্ট প্রেজেন্টেশন প্রদর্শনের মাধ্যমে মতবিনিময় করেন আস্পেক্টরেশিও ক্রিয়েটিভ কমিউনিকেশন, বাংলাদেশ এর সত্ত্বাধিকারী মঈনুর রহমান সোহেল। বিভিন্ন স্তরে মতবিনিময়কালে তিনি প্রকল্প বাস্তবায়নে সবার সহযোগিতা কামনা করেন।

প্রকল্পপরিচালক মঈনুর রহমান সোহেল জানান, প্রকল্প বাস্তবায়নের প্রথমপর্যায়ে এবছরের জুন মাসের মধ্যে রংপুর বিভাগের আটটি জেলায় একটি করে কমিউনিটি নিউজ পোর্টাল, কমিউনিটি ব্লগ, কমিউনিটি ওয়েব টিভি, কমিউনিটি ওয়েব রেডিও এবং কমিউনিটি ওয়েব পোর্টাল বাস্তবায়নের কাজ সম্পন্ন করা সম্ভব হবে।

এছাড়াও জেলা ও উপজেলা পর্যায়ে অনলাইন মার্কেট প্লেস, ক্লাসিফাইড ওয়েবসাইট, অনলাইন ডিরেক্টরি সেবার সমন্বয়ে একটি যুগোপযোগী ওয়েব প্লাটফর্ম তথা ই-কমার্স ফ্রেমওয়ার্ক চালুর অপেক্ষায় আছে। এই ই-কমার্স ফ্রেমওয়ার্কের সাথে সংযুক্ত থাকবে আড়তদারি, পাইকারি, দোকানদারি, কেনাকাটা ও সওদাপাতি নামে পাঁচটি কার্যকর এপ্স ও ই-কমার্স ওয়েবসাইট।

কমিউনিটি কমার্স গড়ে তোলার লক্ষ্যে আরও আছে বেশকিছু চমৎকার কর্মসূচি। যেমন, রুরাল ডেভেলপমেন্ট এন্ড কোওপারেটিভ সোসাইটি, ইনোভেটিভ ডাইভারসিফাইড প্রোডাক্ট রিসোর্সসিং, রিভার্স ইঞ্জিনিয়ারিং টেকনোলজি সার্ভিসেস, এওয়ারনেসস্কিলস এন্ড আইডিয়া ডেভেলপমেন্ট, অল্টারনেটিভ ফারমিং এন্ড রিসার্চ এলায়েন্স ইত্যাদি।

Check Also

রংপুর তাজহাট মেট্রোপলিটন থানা পুলিশের ঈদ উৎসব

এম.এ জলিল-রংপুর প্রতিনিধি ॥ ঈদ মানে খুুশি, ঈদ মানেই অনাবিল আনন্দর হাতছানি, পরিবার ও প্রিয়জনের …